ডাস্টবিনে পাওয়া শিশুটিকে বাঁচিয়েছিলো কুকুর, বর্তমানে শিশুটিকে দেখলে চোখ জুরিয়ে যাবে

ডাস্টবিনে পাওয়া শিশুটিকেঃ কিছু কিছু  মানুষ জানোয়ার থেকেও অধম। কারন জানোয়াররা কখনও তার সন্তানকে ডাস্টবিনে ফেলে দেয় না। একমাত্র মানুষই পারে তার নবজাতককে ডাস্টবিনে ফেলে দিতে। কিন্তু কখনও কখনও পশু হয়ে ওঠে মানুষের চেয়ে মহাত্মবান।

এমনই একটি ঘটনা ঘটল ওমানে। যেখানে বাবা মা তাদের নবজাতক সন্তানকে ডাস্টবিনে ফেলে দিয়েছিলো কিন্তু  সেই শিশুটিকে বাচিয়েছিলো পথের কুকুর। সারারাত তাকে পাহাড়া দিয়ে নিরাপদ আশ্রয়ে পৌছে দিয়েছিলো। বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুন।

ভিডিওটি দেখতে নিচে ক্লিক করুন।

ভিডিওটি পোষ্টের নিচে দেয়া আছে। ভিডিওটি দেখতে স্ক্রল করে পোষ্টের নিচে চলে যান।

আরো পড়ুনঃ

স্কুল ছাত্রীর ইচ্ছের বিরুদ্ধে গোপনে বিয়ের আয়োজন, অতঃপর…

স্কুল ছাত্রীর ইচ্ছের বিরুদ্ধে গোপনে বিয়ের আয়োজন চলছিল। গোপন সংবাদ পেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে বাল্য বিয়ে পন্ড করে দেয়া হয়। বৃহস্পতিবার (৩ মে) রাতে পি‌রোজপু‌রের মঠবাড়িয়ায় উপজেলার উত্তর মিঠাখালী গ্রামের দশম শ্রেনীর ছাত্রী

মনজিলা খাতুন (১৫) বাড়িতে বর ও কনে পক্ষ বিয়ের আয়োজন করে। খবর পেয়ে ওই রাতেই মঠবাড়িয়া উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপ‌জেলা নির্ব‌াহি কর্মকর্তা জি.এম সরফরাজ ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে বাল্যবিয়ে দেওয়ার চেষ্টার অভিযোগে অভিযুক্ত

কনের মা, বরের বাবা ও বরকে আটক করে প্রত্যেককে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানার দন্ডাদেশ দেন। মঠবাড়িয়া থানার এসআই নুর আমীন জানান, স্কুল ছাত্রীর ইচ্ছের বিরুদ্ধে বিয়ের আয়োজন করা হয়েছে এমন গোপন সংবাদ পেয়ে উপজেলা নির্বাহী

কর্মকর্তার নির্দেশে বাল্য বিয়ে পন্ড করে দেওয়া হয়। পরে অভিযুক্ত বর, বরের বাবা, কনের মাকে আটক করে পুলিশ ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে এ দন্ডাদেশ দেন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*