জাতীয় পার্টির মনোনয়ন কিনেছেন হিরো আলম

কিনেছেন জাতীয় পার্টির দলীয় মনোনয়নপত্র। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন আশরাফুল হোসেন আলম খ্যাত নবাগত বলিউড অভিনেতা ‘হিরো আলম’। সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের নেতৃত্বাধিন জাতীয় পার্টির ‘লাঙ্গল’ মার্কার প্রার্থী হচ্ছেন তিনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই সময়ে ব্যাপক আলোচিত তিনি।
তার হাতে মনোনয়ন ফরম তুলে দেন জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের ও পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য চিত্রনায়ক মাসুদ পারভেজ সোহেল রানা।
বগুড়া-৪ (কাহালু-নন্দীগ্রাম) সংসদীয় আসনে লাঙ্গল মার্কা নিয়েই একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন নবাগত বলিউড অভিনেতা। এই খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে ভাইরাল হয়। হিরো আলম একাদশ সংসদ নির্বাচনে তরুণ ভোটারদের কাছে প্রাধান্য পাবেন বলে দাবি করেছেন অনলাইন দর্শকরা।
সম্প্রতি সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়ার ঘোষনা দেয় হিরো আলম। এরপর থেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ বিভিন্ন গনমাধ্যমে আলোচনায় আসেন এই বলিউড অভিনেতা। তরুণ প্রজন্মের কাছে ব্যাপক পরিচিত তিনি। অনলাইন মানেই তরুণ প্রজন্ম। হিরো আলম সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়ার বিষয়টি অনলাইনে ভাইরাল হয়েছে।
সোমবার (১২ নভেম্বর) বিকেলে রাজধানীর বনানীতে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান কার্যালয়ে গিয়ে মনোনয়নপত্র কিনেছেন হিরো আলম। এসময় জাতীয় পার্টির শতশত মনোনয়ন প্রত্যাশী থেকে শুরু করে দলটির উপস্থিত কেন্দ্রীয় সহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা হিরো আলমকে নিয়ে মোবাইলে সেলফির ছড়াছড়ি দেখা গেছে। পার্টির নেতাকর্মীরা পার্টির হলরুমেই ‘হিরো আলম এগিয়ে চল, আমরা আছি তোমার সাথে’ শ্লোগান দিতে থাকে।
গনমাধ্যম কর্মীদের নানা প্রশ্নের জবাবে হিরো আলম বলেন, প্রথম দিকে বগুড়া-৬ সদর আসনে নির্বাচন করার কথা বলেছিলাম। বগুড়া-৪ আসনে আমার গ্রহন যোগ্যতা বেশী। যেকারণে সেখান থেকেই নির্বাচন করব। হুসেইন মুহম্মদ এরশাদকে ভালো লাগে। জাতীয় পার্টির মানুষকে কথা দিলে, রাখে। এজন্য লাঙ্গলের প্রার্থী হতে চাই আমি।
তিনি বলেন, আগেও বলেছি এখনো বলছি, চেহারা দেখে মানুষের বিচার করা যায় না। প্রতিভা আর ইচ্ছা শক্তিই সবকিছু। দুইবার নিজ এলাকায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে অংশ নিয়েছি। সামান্য ভোটের ব্যাবধানে পরাজিত হয়েছি। আমি মনে করি, এটা আমার বিজয়। এলাকার মানুষ আমাকে ভালোবাসে তার প্রমাণ পেয়েছি। একাদশ সংসদ নির্বাচনেও ভোটারদের ভালোবাসার প্রতিফলন ঘটাবে এবং আমাকে নির্বাচিত করবে বলেও আমার বিশ্বাস।
প্রসঙ্গত, সোশ্যাল মিডিয়া থেকে আকস্মিকভাবে আলোচনায় উঠে আসেন আশরাফুল হোসেন আল ওরফে হিরো আলম। এরপর বগুড়া থেকে ঢাকায় এসে একের পর মিউজিক ভিডিওতে কাজ করেছেন। ‘মার ছক্কা’ নামের একটি চলচিত্রেও অভিনয়ের সুযোগ পান তিনি। সবকিছুকে ছাড়িয়ে বলিউডে ডানা মেলেছেন আলোচিত এই তারকা। ২ ঘন্টা ১০ মিনিটের ছবিতে নায়কের চরিত্রে অভিনয় করবেন তিনি। ‘বিজু দ্য হিরো’ নামের এ ছবিটির পরিচালক প্রভাত কুমার।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*