আপনার স্বামী কি সঙ্গমের সময় অকাল বীর্যপাতে ভুগছেন? কারণ জানেন কি?

আপনার স্বামী কি সঙ্গমের সময় অকাল বীর্যপাতে ভুগছেন? এটি একেবারেই একটি সাধারণ যৌনসমস্যা। কিন্তু অনেক সময়ে এটাই হয়ে দাঁড়ায় সম্পর্ক-বিচ্ছেদের কারণ।

কেন হয় এমন সমস্যা? জেনে নিন কয়েকটি কারণ। অকাল বীর্যপাত বা দ্রুতস্খলন মানে সঙ্গমকালে পুরুষের দ্রুত বীর্যপাত। ইংরেজিতে যাকে বলে প্রিম্যাচিওর ইজ্যাক্যুলেশন।

এটি একেবারেই একটি সাধারণ যৌনসমস্যা। অনেক বিশেষজ্ঞ মনে করেন, প্রতি তিনজন পুরুষের মধ্যে একজনকে এ সমস্যায় আক্রান্ত হতে দেখা যায়।

অনেকের আবার স্ত্রী যোনিতে পুরুষাঙ্গ প্রবেশ করানোর আগেই বীর্যপাত হয়ে থাকে। যোনিতে লিঙ্গ প্রবেশের সময় থেকে বীর্যপাত পর্যন্ত সময়কে বলা হয় বীর্যধারণকাল। তবে কতক্ষণ পরে বীর্যপাত স্বাভাবিক, তার কোনও সুনির্দিষ্ট বা আদর্শ সময় নেই। পুরুষে পুরুষে, বয়সের তারতম্যে বিভিন্ন রকম দেখা যায়।

সাধারণ যে কারণে এমন হয়ে থাকে

১। তড়িঘড়ি করে চরম পুলকে পৌঁছনোর তাগিদ।

২। অপরাধবোধ অনেক সময়ে শীঘ্র বীর্যপাত ঘটায়।

৩। পুরুষত্বহীনতাও একটা বড় কারণ হতে পারে।

৪। তৃপ্তি দিতে পারব কি না— এই হীনমন্যতা এবং দুশ্চিন্তাও একটি কারণ।

৫। অতিরিক্ত উত্তেজনার জন্যেও হতে পারে।

৬। প্রথম যৌনমিলনে পুরুষের অকাল বীর্যপাত খুবই স্বাভাবিক।

এই সব মানসিক কারণ ছাড়াও কিছু শারীরিক কারণেও শীঘ্র বীর্যপাত ঘটতে পারে। হরমোনের অস্বাভাবিক মাত্রা, থাইরয়েড গ্রন্থির সমস্যা, স্নায়ুতন্ত্রের সমস্যা এমনকী, বংশগত কারণেও এটা হতে পারে। এর জন্য চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া উচিত।

তবে সবথেকে বড় সমাধানটা করতে হয় নিজেকেই। এবং সেটা মানসিক পরিবর্তনের মধ্য দিয়েই সম্ভব। সহজ পথ— অপরের সঙ্গে নিজেকে তুলনা না করা।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*